সুপ্রিম কোর্ট প্রাঙ্গণে টি এইচ খানের জানাজা সম্পন্ন, দাফন গ্রামের বাড়িতে

প্রকাশিতঃ 1:22 pm | January 17, 2022

নিজস্ব সংবাদদাতা, কালের আলো:

সাবেক মন্ত্রী ও বিচারপতি তাফাজ্জাল হোসেন (টি এইচ) খানের জানাজা সম্পন্ন হয়েছে। সোমবার (১৭ জানুয়ারি) সকালে সুপ্রিম কোর্ট প্রাঙ্গণে এ জানাজা হয়। মরহুম টিএইচ খানকে তাঁর গ্রামের বাড়ি ময়মনসিংহ জেলার হালুয়াঘাট উপজেলার ঔটি গ্রামে দাফনের কথা রয়েছে।

এর আগে রাজধানীর একটি হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় গতকাল রোববার বিকেলে মারা যান টি এইচ খান। তাঁর বয়স হয়েছিল ১০২ বছর। তিনি একাধারে সুপ্রিম কোর্টের আইনজীবী ও বিচারপতি ছিলেন। এরপর বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যান ছিলেন।

১৯৭৯ সালে দ্বিতীয় সংসদ নির্বাচনে ময়মনসিংহের হালুয়াঘাট- ধোবাউড়া আসন থেকে সাংসদ নির্বাচিত হয়েছিলেন। এরপর আইন ও বিচার, তথ্য ও বেতার, শিক্ষা, ভূমি, ধর্ম, যুব ও ক্রীড়া ও সংস্কৃতিবিষয়ক মন্ত্রণালয়ের দায়িত্ব পালন করেছিলেন।

টিএইচ খান তিন ছেলে ও এক মেয়েসহ নাতি-নাতনী ও অসংখ্য গুণগ্রাহী রেখে গেছেন।

দেশবরেণ্য ও সর্বজন শ্রদ্ধেয় এই আইনবিদ ১৯২০ সালের ২১ অক্টোবর ময়মনসিংহ জেলার হালুয়াঘাট উপজেলাধীন ঔটি গ্রামে জন্মগ্রহণ করেন। ১৯৪০ সালে বিচারপতি টি এইচ খান ম্যাট্রিকুলেশন পাস করেন এবং ১৯৪২ সালে তৎকালীন কলকাতা শিক্ষা বোর্ডের অধীনে ইন্টারমিডিয়েট পাস করে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে বিএ অনার্স-এ ভর্তি হন। ১৯৪৫ সালে তিনি ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় থেকে বিএ অনার্স এবং ১৯৪৬ সালে এমএ পাস করেন। ১৯৪৭ সালে তিনি আইন পেশায় যোগ দেন।

১৯৫১ সালের ১৪ মার্চ বিচারপতি টি এইচ খান হাইকোর্টের আইনজীবী হন। আইন পেশা ছাড়াও তিনি প্রথম জীবনে পাবনা এডওয়ার্ড কলেজ, ঢাকার জগন্নাথ কলেজ ও ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে দর্শন ও আইন বিষয়ে শিক্ষকতা করেন।

বিচারপতি টি এইচ খান ১৯৯২ সালে জাতীয়তাবাদী আইনজীবী ফোরাম প্রতিষ্ঠা করেন এবং প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি নির্বাচিত হন। এই পদে তিনি ২০১১ সাল পর্যন্ত দায়িত্ব পালন করেন। তিনি বিএনপির প্রথম ভাইস চেয়ারম্যান।

কালের আলো/এসবি/এমএম

Print Friendly, PDF & Email