মানিলন্ডারিং ও সাইবার অপরাধ প্রতিরোধে সবার সহযোগিতা প্রয়োজন : সিআইডি প্রধান

প্রকাশিতঃ 8:38 pm | February 22, 2024

নিজস্ব প্রতিবেদক, কালের আলো:

সিআইডি প্রধান অতিরিক্ত আইজিপি মোহাম্মদ আলী মিয়া বলছেন, মানিলন্ডারিং ও সাইবার অপরাধ প্রতিরোধে আইন প্রয়োগকারী সংস্থার পাশাপাশি বেসরকারি খাত ও আন্তর্জাতিক সংস্থাসহ সমাজের সব ক্ষেত্রের স্টেকহোল্ডারদের সক্রিয় অংশগ্রহণ এবং সহযোগিতা প্রয়োজন।

বৃহস্পতিবার (২২ ফেব্রুয়ারি) সিআইডি সদরদপ্তরে ‘কম্ব্যাটিং ম্যাকানিজম অ্যাগেনেস্ট ডিজিটাল এক্সপ্লোয়শন ফর ফিন্যান্সিয়াল গেইন’ বিষয়ক দিনব্যাপী আন্তর্জাতিক সেমিনারে তিনি এ কথা বলেন।

সিআইডি প্রধান বলেন, মানিলন্ডারিং ও সাইবার অপরাধ প্রতিরোধে আইন প্রয়োগকারী সংস্থার পাশাপাশি বেসরকারি খাত, সুশীল সমাজ, একাডেমিয়া, আন্তর্জাতিক সংস্থাসহ সমাজের সব ক্ষেত্রের স্টেকহোল্ডারদের সক্রিয় অংশগ্রহণ এবং সহযোগিতা প্রয়োজন।

এরই মধ্যে সিআইডি তদন্তকারী অফিসারদের সক্ষমতা এবং পেশাদারী দক্ষতা উন্নত করতে ধারাবাহিক প্রশিক্ষণ সেশন ও কর্মশালার ব্যবস্থা করছে। সেখানে বাংলাদেশের বন্ধু হিসেবে মার্কিন দূতাবাস ও এফবিআইকে অবদান রাখার আহ্বান জানান তিনি।

সেমিনারে ফিন্যান্সিয়াল ক্রাইম বিষয়ক কি-নোট উপস্থাপন করেন যুক্তরাষ্ট্রের ইলসিট ফিন্যান্স ট্যাকনিকেল এডভাইজর ডেরেক ওডনী এবং সাইবার ক্রাইম বিষয়ক কি-নোট উপস্থাপন করবেন যুক্তরাষ্ট্রের এফবিআইয়ের রবার্ট জে. ক্যামেরন।

এছাড়াও আলোচক হিসেবে উপস্থিত ছিলেন- এলইএএর মাইকেল হিন্টজ এবং ভার্চুয়ালি সংযুক্ত হয়ে বক্তব্য দেন মালয়েশিয়া আইএনটিআই ইন্ট্যারনেশনাল ইউনিভার্সিটির সহযোগী অধ্যাপক ড. খান সারাফাজ আলী ও ফিলিপাইন কেপিজ স্টেট ইউনিভার্সিটির প্রোগ্রাম চেয়ারম্যান জ্যাসন বি. ক্যাপানডান।

সেমিনারে ডেরেক ওডনী তার বক্তব্যে ক্রিপ্টোকারেন্সি, ব্লকচেইন এবং ব্লকচেইন ট্রান্সপারেন্সি সম্পর্কে বিস্তারিত তুলে ধরেন। এছাড়াও ক্রিপ্টোকারেন্সি বিটকয়েনের জন্য ডেটা স্ট্রাকচারিং এবং হ্যাশ জেনারেটর অ্যাক্সেস করাসহ বর্তমান বিশ্বে বিটকয়েনের মূল্য সম্পর্কে সামগ্রিক ধারণা দেন।

রবার্ট জে. ক্যামেরন সাইবার ও মানিলন্ডারিং অপরাধ দমনে ডোমেইন টেকডাউনের গুরুত্ব এবং ডোমেইন টেকডাউনের জন্য কিছু গুরুত্বপূর্ণ ওপেন সোর্স ফ্রি টুলস সম্পর্কে আলোচনা করেন।

এ সময় মাইকেল হিন্টজ তার বক্তব্যে বলেন, মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র বাংলাদেশের সঙ্গে অর্থপাচার ও সাইবার অপরাধ দমনে কাজ করবে।

এছাড়া ভার্চুয়ালি সংযুক্ত হয়ে জ্যাসন বি. ক্যাপানডান ফিলিপাইনের প্রেক্ষাপট থেকে অর্থপাচারের বিরুদ্ধে লড়াইয়ের অভিজ্ঞতা এবং অ্যান্টি মানিলন্ডারিং কাউন্সিল কার্যক্রমের সংক্ষিপ্ত বিবরণ দেন।

পরে প্রফেসর ড. খান সারাফাজ আলী মানিলন্ডারিং মোকাবিলায় সিআইডির সাফল্য তুলে ধরেন। তিনি মানিলন্ডারিং মামলা তদন্তে তদন্তকারী কর্মকর্তাদের সম্মুখীন হওয়া কিছু চ্যালেঞ্জের কথা উল্লেখ করে চ্যালেঞ্জ মোকাবিলার জন্য একটি কর্মপরিকল্পনার প্রস্তাব করেন।

সেমিনারে কি-নোট উপস্থাপনকারী ও অন্য বক্তাদের অংশগ্রহণের জন্য ধন্যবাদ জ্ঞাপন করেন এবং সাইবার ও মানিলন্ডারিং অপরাধ দমনে বাংলাদেশ ও যুক্তরাষ্ট্রের বন্ধুত্ব ও সহযোগিতা উত্তরোত্তর বৃদ্ধি পাবে বলে আশাবাদ ব্যক্ত করেন সিআইডি প্রধান মোহাম্মদ আলী মিয়া।

সেমিনারে সিআইডির তদন্ত তদারকি ও তদন্তকারীসহ অন্য ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা অংশ নেন।

কালের আলো/বিএএ/এসএম

Print Friendly, PDF & Email