তৈরী পোশাক খাতে মিড লেভেলে বিদেশী জনশক্তির প্রয়োজন হবে না : বাণিজ্যমন্ত্রী

প্রকাশিতঃ 9:10 pm | January 19, 2023

নিজস্ব প্রতিবেদক, কালের আলো:

বাণিজ্যমন্ত্রী বীর মুক্তিযোদ্ধা টিপু মুনশি বলেছেন, যে কোনো শিল্প প্রতিষ্ঠানের মূল চালিকা শক্তি হচ্ছে দক্ষ জনশক্তি। ‘আমাদের তৈরী পোশাক শিল্পে মিড লেভেলে কাজ করার জন্য প্রয়োজনীয় দক্ষ ম্যানেজার তৈরী হয়েছে।’

তিনি বলেন, ‘কর্ম ক্ষেত্রেও তারা বেশ ভাল কাজ করছে। দীর্ঘদিন বিদেশী জনবল দিয়ে আমরা এ কাজ করেছি। এখন দেশেই পর্যাপ্ত দক্ষ জনশক্তি তৈরী হচ্ছে। বিদেশী ম্যানেজারদের উপর আমাদের এখন আর নির্ভর করতে হবে না।’

বৃহস্পতিবার (১৯ জানুয়ারি) তুরাগে ‘আরএমজি সেক্টরে দক্ষ ম্যানেজার তৈরীর উদেশ্যে পরিচালিত বিইউএফটি-ইপিবি পিজিডি প্রোগ্রাম ফর মিড লেভেল ম্যানেজমেন্ট’ বিষয়ক অরিয়েন্টেশন এন্ড সার্টিফিকেট প্রদান অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তৃতায় এসব কথা বলেন। বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের সহযোগিতায় বিজিএমইএ ইউনিভার্সিটি অফ ফ্যাশন এন্ড টেনোলজি (বিইউএফটি) এ অনুষ্ঠানের আয়োজন করে।

টিপু মুনশি বলেন, দক্ষ জনশক্তি তৈরীর জন্য বিজিএমইএ ইউনিভার্সিটি অফ ফ্যাশন এন্ড টেনোলজি (বিইউএফটি) কাজ করছে। কারণ, দক্ষ জনশক্তিই একটি শিল্প প্রতিষ্ঠানের মূল চালিকা শক্তি।

তিনি বলেন, ‘তৈরী পোশাক খাতে বিদেশী জনশক্তির উপর নির্ভরশীলতা কমানোই আমাদের উদ্দেশ্য। এজন্য বাণিজ্য মন্ত্রণালয় দক্ষ জনশক্তি তৈরীর এই বিশেষ উদ্যোগ গ্রহণ করেছে। আমাদের তৈরী জনশক্তি দেশের চাহিদা পূরণ করবে। এ সকল দক্ষ জনশক্তিকে আমাদের শিল্প প্রতিষ্ঠানে দায়িত্বশীল ভূমিকা রাখতে হবে।

বাণিজ্যমন্ত্রী বলেন, অনেক প্রতিকুল পরিস্থিতি দক্ষতার সাথে মোকাবেলা করে বাংলাদেশের পোশাক খাত বিশ্বের মধ্যে দ্বিতীয় বৃহৎ তৈরী পোশাক রপ্তানি কারক হিসাবে প্রতিষ্ঠিত হয়েছে। বর্তমানে ‘আমাদের রপ্তানির প্রায় ৮২ ভাগ আসে তৈরী পোশাক খাত থেকে’।

টিপু মুনশি বলেন, ‘একসময় আমাদের তৈরী পোশাক খাতের ম্যানেজমেন্ট লেভেলে শুধু বিদেশী জনশক্তিই কাজ করতো। এখন আমাদের দেশের অনেক দক্ষ জনশক্তি তৈরী হচ্ছে। পেশাগত কাজে তারা বেশ দক্ষতার পরিচয় দিচ্ছে। সে কারনে বিদেশী কর্মীর সংখ্যা অনেক কমে এসেছে। এ ধরনের প্রশিক্ষণের মাধ্যমে দক্ষ জনশক্তি তৈরী করা সম্ভব হলে আমাদের আর বিদেশী জনশক্তির প্রয়োজন হবে না। সরকারের বাণিজ্য মন্ত্রণালয় সে লক্ষ্যকে সামনে রেখে কাজ করে যাচ্ছে।’

বিইউএফটি’র বোর্ড অফ ট্রাষ্টি’র চেয়ারম্যান মো. শফিউল ইসলাম মহিউদ্দিনের সভাপতিত্বে এ অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি ছিলেন বিজিএমইএ’র প্রেসিডেন্ট ফারুক হাসান, রপ্তানি উন্নয়ন ব্যুরোর ভাইস চেয়ারম্যান এ এইচ এম আহসান ও বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের অতিরিক্ত সচিব (রপ্তানি) মো. আব্দুর রহিম।

অনুষ্ঠানে স্বাগত বক্তব্য রাখেন বিইউএফটি’র ভিসি প্রফেসর ড. এস এম মাহফুজুর রহমান এবং ভোট অফ থ্যাংকস দান করেন প্রো-ভিসি প্রফেসর ড. ইঞ্জিনিয়ার আইয়ুব নবী খান।

কালের আলো/এসবি/এমএম

Print Friendly, PDF & Email