হ্যান্ডবলের মহারথে শ্রেষ্ঠ বিজিবি, সাফল্য অব্যাহত রাখতে উৎসাহ ডিজির

প্রকাশিতঃ 9:38 pm | January 12, 2023

জ্যেষ্ঠ ক্রীড়া প্রতিবেদক, কালের আলো:

হ্যান্ডবলে লাল সবুজের প্রতিনিধির তালিকায় রয়েছেন বর্ডার গার্ড বাংলাদেশের (বিজিবি) ৯ খেলোয়াড়। দেশের হ্যান্ডবলেও আছে বাহিনীটির গৌরবগাঁথা ইতিহাস। ১৯৮৩ সালে হ্যান্ডবল চর্চার শুরু থেকেই জাতীয় পর্যায়ে যেন নিয়ম করেই চ্যাম্পিয়ন শিরোপা ঘরে তুলেছে। ঝুলিতে ছড়াছড়ি রেকর্ডের। ৩৯ বছরের বর্ণীল পথচলায় নেই শুন্যতা। ঈর্ষণীয় পরিসংখ্যান বলছে, ৩৩টি জাতীয় হ্যান্ডবল প্রতিযোগিতার ৩০ টিতেই চ্যাম্পিয়ন হওয়ার গৌরব আছে সীমান্তের অতন্দ্র প্রহরীদের।

হ্যান্ডবলে বিজিবির শ্রেষ্ঠত্বের ধারাবাহিকতা অক্ষুন্ন ছিল বিদায়ী বছরের বিজয়ের মাসে। ওই বছরের ১৫ ডিসেম্বর রাজধানীর শহীদ ক্যাপ্টেন এম মনসুর আলী হ্যান্ডবল স্টেডিয়ামে বিজয় দিবস হ্যান্ডবল প্রতিযোগিতায় তাঁরা ৩২-২৬ গোলের ব্যবধানে বাংলাদেশ আনসারকে পরাজিত করে চ্যাম্পিয়ন। চ্যাম্পিয়ন বিজিবি’র সিপাহী তাজু হাসান শ্রেষ্ঠ খেলোয়াড় নির্বাচিত হন। ৪০ মিটার দৈর্ঘ্য এবং ২০ মিটার প্রস্থের মাঠে হ্যান্ডবলের মহারথে নতুন বছরেও বাজিমাত করেছে দলটি। স্পষ্ট ইঙ্গিত দিয়েছে এই বছরও নিজেদেরই।

গত মঙ্গলবার (১০ জানুয়ারি) সেই স্টেডিয়ামেও যেন ইতিহাসের পুনরাবৃত্তি। ‘এক্সিম ব্যাংক ৩৩তম জাতীয় হ্যান্ডবল প্রতিযোগিতার ফাইনালে রুদ্ধশ্বাস লড়াইয়ে বাংলাদেশ আনসারকে ৩৭-৩২ গোলের ব্যবধানে হারিয়ে দেয়। নিজেদের শোকেসে সংযোজন করে এক্সিম ব্যাংক জাতীয় হ্যান্ডবল শিরোপা। এখানেও বিজিবির গোলরক্ষক নায়েক তারিকুর রহমান ‘বেস্ট প্লেয়ার’ নির্বাচিত হন। বছরের প্রথম দিকে দেশের হ্যান্ডলের আশার পালে জোরালো হাওয়া বইয়ে দিয়েছে।

দুর্দান্ত নৈপুণ্যে উদ্ভাসিত বিজিবি হ্যান্ডবল দলের সাফল্যের ধারাবাহিকতায় মুগ্ধ বিজিবি মহাপরিচালক (ডিজি) মেজর জেনারেল সাকিল আহমেদ। তিনি মাইলফলক তৈরিতে সক্ষম দলটিকে উৎসাহিত করেছেন। বৃহস্পতিবার (১২ জানুয়ারি) বিজিবি সদর দপ্তরে তিনি ব্যক্তিগতভাবে তাদের অভিনন্দন জানানোর পাশাপাশি পুরস্কৃতও করেছেন। ক্যামেরাবন্দি হয়েছেন। একই সঙ্গে ভবিষ্যতেও জাতীয় এবং আন্তর্জাতিক পর্যায়ে সাফল্যের এই ধারা অব্যাহত রাখতে বিজিবি হ্যান্ডবল দলকে উৎসাহ জুগিয়েছেন। বিজিবি ডিজির প্রেরণা সঞ্চারী বার্তায় সামনের দিনগুলোতেও হ্যান্ডবলের ‘রাজা’ হিসেবে প্রজাপতি হয়েই উড়তে চায় স্বপ্নসারথিরা।

কালের আলো/এমএএএমকে

Print Friendly, PDF & Email