ময়মনসিংহ জেলা জামায়াতের সেক্রেটারিসহ ১৯ নেতা-কর্মী কারাগারে

প্রকাশিতঃ 5:30 pm | October 23, 2022

ময়মনসিংহ প্রতিনিধি:

‘গোপন বৈঠক’ চলাকালে ময়মনসিংহের একটি রেস্টুরেন্ট থেকে আটক বাংলাদেশ জামায়াতে ইসলামীর জেলা সেক্রেটারি মোজাম্মেল হকসহ ১৯ জনকে কারাগারে পাঠানোর আদেশ দিয়েছেন আদালত। রবিবার (২৩ অক্টোবর) দুপুরে এক নম্বর আমলি আদালতের বিচারক আব্দুল হাই এই আদেশ দেন।

এর আগে শনিবার (২২ অক্টোবর) সন্ধ্যায় নগরের চরপাড়া এলাকার একটি রেস্টুরেন্ট থেকে জামায়াতের ১৯ নেতা-কর্মীকে আটক করা হয়। এরপর তাদের বিরুদ্ধে বিশেষ ক্ষমতা আইনে মামলা করে পুলিশ।

কারাগারে পাঠানো অন্য আসামিরা হলেন—ওসমান গনি (৪৫), আজিজুর রহমান (৪৩), ফেরদৌস আলম (৪৪), আল আমিন (৩৭), দেলোয়ার হোসেন কুদ্দুস (৩১), তাজুল ইসলাম (৪৫), মো. আসাদুজ্জামান (৪২), শাহিন খান (২৭), মাহমুদুল হাসান শাহিন (৩৮), মাহাবুবুল হাকিম (৪২), মেহেদী হাসান (৩৬), সারোয়ার হোসেন (৪৫), আলমগীর হোসেন (৪২), মো. নাফিজ (৩১), আবু হানিফ (৩৭), ফজলুল করিম ফারুকী (৫২), শেখ আহমেদ আফিফা (৩৮) ও নুরুল হক (৩৮)।

কোতোয়ালি মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) শাহ কামাল আকন্দ জানান, সরকারবিরোধী ষড়যন্ত্রের উদ্দেশ্যে গতকাল সন্ধ্যায় এক রেস্টুরেন্টে গোপন বৈঠকে বসেন ময়মনসিংহ জেলা জামায়াতের সেক্রেটারিসহ ১৯ নেতা-কর্মী। খবর পেয়ে তাদের আটক করা হয়। পুলিশ বাদী হয়ে তাদের বিরুদ্ধে বিশেষ ক্ষমতা আইনের মামলা করেছে। সেই মামলায় গ্রেফতার দেখিয়ে দুপুরে আদালতে তুলে প্রত্যেকের পাঁচ দিনের রিমান্ড আবেদন করেন মামলার তদন্ত কর্মকর্তা এসআই রাসুল সামদানী আজাদ। আগামী যেকোনও দিন রিমান্ড শুনানি হবে জানিয়ে তাদের কারাগারে পাঠানোর আদেশ দিয়েছেন আদালত।

কালের আলো/এসবি/এমএ

Print Friendly, PDF & Email