এ কেমন ‘নীতি’ ডা. জাফরুল্লাহ চৌধুরীর? 

প্রকাশিতঃ 10:22 am | July 21, 2022

কালের আলো ডেস্ক:

বিএনপিপন্থী বুদ্ধিজীবী ডা. জাফরুল্লাহ চৌধুরী।  নীতি নৈতিকতার ছবকে সব সময়ই মুখর থাকেন। 

সমালোচনামূলক ও নেতিবাচক কথার স্বভাব তার মজ্জাগত। অথচ সেই তিনিই গণস্বাস্থ্য নগর হাসপাতালের হোল্ডিং ট্যাক্স পরিশোধ করেন না গত ২৪ বছর। 

রাজধানীর ধানমণ্ডিতে অবস্থিত এই হাসপাতালের কাছে এই দীর্ঘ সময়ের বকেয়া হিসেবে ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশনের (ডিএসসিসি) পাওনা টাকার পরিমাণ গিয়ে ঠেকেছে ২ কোটি ৪০ লক্ষ ২৩ হাজার ১১০ টাকা। 

এই টাকা পরিশোধ করতে অনেক পত্র, তাগিদ পত্র ও ক্রোকি নোটিশ প্রদান করা হলেও প্রকারান্তরে অনীহাই যেন প্রকাশ করেছেন গণস্বাস্থ্য কেন্দ্রের প্রতিষ্ঠাতা। 

ফলে বকেয়া আদায়ে বাধ্য হয়েই বুধবার (২০ জুলাই) গণস্বাস্থ্য নগর হাসপাতাল সিলগালা করতে অভিযান পরিচালনা করে ডিএসসিসি। অভিযানের এক পর্যায়ে ডিএসসিসিকে তিনি ১০ লক্ষ টাকার চেক প্রদান করেছেন। বাকী বকেয়া অর্থ মেয়রের সঙ্গে আলাপ-আলোচনা করে পরিশোধ করার অঙ্গীকার করেন। 

১০ লক্ষ টাকার চেক দিয়ে তার কাছে হোল্ডিং ট্যাক্স বাবদ সিটি কর্পোরেশনের পাওনা টাকার দাবিকে অযৌক্তিক বলেও দাবি করেছেন বিএনপির প্রতি সহানুভূতিশীল রাজনৈতিক সচেতন ব্যক্তি ডা. জাফরুল্লাহ চৌধুরী। 

ডিএসসিসির এই অভিযানে সরগরম সোশ্যাল হ্যান্ডেল। অনেকেই বলছেন, রাজনীতির পর্দায় নীতবান জাফরুল্লাহ চৌধুরী’র ফাও খাওয়ার প্রবণতা অবাক করেছে। নীতির বুলি আওড়ানোর আগে হোল্ডিং ট্যাক্স পরিশোধের পরামর্শ দিয়েছেন তাকে। 

আবার তার পক্ষে অনেকে পাল্টা যুক্তিও দাঁড় করাচ্ছেন। কেউ কেউ ডিএসসিসির মেয়র ব্যারিস্টার ফজলে নূর তাপসের অ্যাকশনের প্রশংসা করেছেন। বলেছেন, বকেয়া হোল্ডিং ট্যাক্স আদায়ে ডিএসসিসি’র এই পদক্ষেপ অব্যাহত রাখতে হবে।

কালের আলো/এসবি/এমএম

Print Friendly, PDF & Email