গাইবান্ধা-৫ আসনের উপনির্বাচন, তিন কেন্দ্রের ভোট স্থগিত

প্রকাশিতঃ 11:17 am | October 12, 2022

কালের আলো প্রতিবেদক:

গাইবান্ধা-৫ আসনের উপনির্বাচনে ভোটকেন্দ্রের গোপন কক্ষে একাধিক ব্যক্তি প্রবেশ করায় ফুলছড়ি উপজেলার ভরতখালী উচ্চ বিদ্যালয় কেন্দ্র, ফুলছড়ি পাইলট উচ্চ বিদ্যালয় এবং সাঘাটার রাম নগর উচ্চ বিদ্যালয়সহ ৩টি কেন্দ্রের ভোটগ্রহণ স্থগিত করা হয়েছে।

বুধবার (১২ অক্টোবর) বেলা ১১টায় সহকারী রিটার্নিং কর্মকর্তা আবতাব উজ্জামান এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন। এর আগে সকাল ৮টা থেকে ভোটগ্রহণ শুরু হয়। চলবে বিরতিহীনভাবে বিকেল চারটা পর্যন্ত।

জানা গেছে, নির্বাচনী মাঠে আইনশৃঙ্খলা রক্ষার দায়িত্বে প্রতিটি কেন্দ্রে চারজন পুলিশ সদস্য ও ১২ জন আনসার সদস্য সার্বক্ষণিক দায়িত্ব পালন করছেন। এ ছাড়া ভোটের মাঠে র‌্যাপিড অ্যাকশন ব্যাটালিয়নের ৯টি টিম, ৪ প্লাটুন বিজিবি ও ৫টি সাদা পোশাকের স্ট্রাইকিং ফোর্স দায়িত্বে রয়েছেন। তাছাড়া ১৭ জন নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট নির্বাচনি মাঠে রয়েছেন। তবে এবার নারী ভোটারের চেয়ে পুরুষ ভোটারের সংখ্যা বেশি। তবে ইভিএম মেশিনে জটিলতার কারণে কয়েকটি কেন্দ্রে ভোটগ্রহণে বিলম্ব হচ্ছে বলে জানা যায়।

সহকারী রিটার্নিং কর্মকর্তা আবতাব উজ্জামান জানান, ভোট শুরুর পর কেন্দ্রে ভোটারের উপস্থিতি কম হলেও, বেলা বাড়ার সঙ্গে কেন্দ্রগুলোতে ভোটারদের উপস্থিতি বাড়তে থাকে।

এ বিষয়ে পুলিশ সুপার মো. তৌহিদুল ইসলাম বলেন, নির্বাচনে যেকোনো অপ্রীতিকর পরিস্থিতি এড়াতে কঠোর নিরাপত্তা ব্যবস্থা জোরদার করা হয়েছে।

উল্লেখ্য, গত ২২ জুলাই হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান জাতীয় সংসদের ডেপুটি স্পিকার মো. ফজলে রাব্বী মিয়া। এর দুই দিন পর তার সংসদীয় আসন শূন্য ঘোষণা করে সংসদ সচিবালয়। তবে গাইবান্ধা-৫ আসনটি ফুলছড়ি ও সাঘাটা উপজেলা নিয়ে গঠিত। এর মধ্যে সাঘাটা উপজেলার ১০টি ও ফুলছড়ি উপজেলার সাতটিসহ মোট ১৭টি ইউনিয়ন নিয়ে মিলে ৩ লাখ ৩৯ হাজার ৭৪৩ জন ভোটার তাদের ভোটাধিকার প্রয়োগ করবেন। এর মধ্যে পুরুষ ভোটার ১ লাখ ৬৯ হাজার ৫৮৩ জন এবং নারী ভোটার ১ লাখ ৭০ হাজার ১৬০ জন।

কালের আলো/এমএইচ/এসবি

Print Friendly, PDF & Email