বিশ্ব আবহাওয়া পরিস্থিতি : ২৪ জুন ২০২৪

প্রকাশিতঃ 10:38 pm | June 24, 2024

আন্তর্জাতিক ডেস্ক, কালের আলো:

উত্তর গোলার্ধে এখন গ্রীষ্মকাল। বিশ্বের বেশিরভাগ দেশের অবস্থান এই অঞ্চলে হওয়ায় সেসব দেশেও এখন গরমকাল চলছে। জলবায়ু পরিবর্তন ও বৈশ্বিক উষ্ণতার কারণে অনেক দেশে শুরু হয়েছে টানা তাপপ্রবাহ।

ভারত

বাংলাদেশের প্রতিবেশী দেশ ভারতের রাজধানী নয়াদিল্লিতে আজ গড় তাপমাত্রা ছিল ৩৭ ডিগ্রি সেলসিয়াস। আর পশ্চিমবঙ্গে ছিল ৩১ ডিগ্রি সেলসিয়াস। ভারতের বাণিজ্যিক রাজধানী হিসেবে পরিচিত মুম্বাইয়ের তাপমাত্রা অবশ্য চলতি গ্রীষ্ম মৌসুমের হিসেবে কম— ২৯ ডিগ্রি সেলসিয়াস।

পাকিস্তান

ভারতের অন্যতম প্রতিবেশী পাকিস্তানের রাজধানী ইসলামাবাদের তাপমাত্রা আজ ছিল ৩৮ ডিগ্রি সেলসিয়াস। দেশটির প্রধান বন্দর শহর করাচির তাপমাত্রা ছিল ৩৬ ডিগ্রি সেলসিয়াস।

মধ্যপ্রাচ্যের নেতৃস্থানীয় দেশ সৌদি আরবের তাপমাত্রা বিভিন্ন এলাকায় আজ ৪৫ ডিগ্রি থেকে ৩৭ ডিগ্রি সেলসিয়াসের মধ্যে ওঠানামা করেছে। রাজধানী রিয়াদ ও আশাপাশের এলাকায় তাপমাত্রা ছিল ৪৫ ডিগ্রি থেকে ৪২ ডিগ্রির মধ্যে। আর ইসলাম ধর্মাবলম্বীদের জন্য পবিত্র দুই শহর মক্কা ও মদিনার তাপমাত্রা এদিন ৩৭ ডিগ্রি থেকে ৪২ ডিগ্রির মধ্যে ওঠানামা করেছে।

ফিলিস্তিনের দুই অংশ গাজা ও পশ্চিম তীরের তাপমাত্রা এদিন ৩০ থেকে ৩২ ডিগ্রির মধ্যে ছিল।

সেই তুলনায় অনেক উষ্ণ দিন দেখেছে কুয়েত। মধ্যপ্রাচ্যের উপসাগরীয় দেশ কুয়েতের বিভিন্ন অঞ্চলে আজ তাপমাত্রা ছিল ৪৫ ডিগ্রি থেকে ৪৭ ডিগ্রি সেলসিয়াস।

মধ্যপ্রাচ্যের উপসাগরীয় অঞ্চলের অপর দেশ সংযুক্ত আরব আমিরাতের রাজধানী আবুধাবির তাপমাত্রা ছিল ৩৬ ডিগ্রি সেলসিয়াস। আর এশিয়ার অন্যতম বাণিজ্যকেন্দ্র দুবাইয়ের তাপমাত্রা আজ ছিল ৪০ ডিগ্রি সেলসিয়াস।

মিসরের রাজধানী কায়রোর তাপমাত্রা আজ ছিল ৪০ ডিগ্রি সেলসিয়াস।

অন্যান্য

ভারত-পাকিস্তান ও মধ্যপ্রাচ্য ব্যতীত বিশ্বের অন্য কোনো অঞ্চলে তাপমাত্রা আজ ৩০ ডিগ্রি সেলসিয়াস ছাড়ায়নি। আজ মালদ্বীপের রাজধানী মালের তাপমাত্রা ছিল ৩০ ডিগ্রি সেলসিয়াস, মালয়েশিয়ার রাজধানী কুয়ালালামপুরের তাপমাত্রা ছিল ২৮ ডিগ্রি সেলসিয়াস, শ্রীলঙ্কার রাজধানী কলম্বোর তাপমাত্রা ছিল ২৬ ডিগ্রি সেলসিয়াস।

এছাড়া চীনের রাজধানী বেইজিংয়ের তাপমাত্রা ছিল ২৭ ডিগ্রি সেলসিয়াস, থাইল্যান্ডের রাজধানী ব্যাংককের তাপমাত্রা ছিল ২৯ ডিগ্রি সেলসিয়াস এবং যুক্তরাজ্যের রাজধানী লন্ডনের তাপমাত্রা ছিল ২৬ ডিগ্রি সেলসিয়াস।

কালের আলো/ডিএইচ/কেএ 

Print Friendly, PDF & Email