যারা পুলিশের কথা বলছে, তারাই মানবাধিকার লঙ্ঘন করছে: ডিবিপ্রধান

প্রকাশিতঃ 3:23 pm | December 10, 2023

নিজস্ব প্রতিবেদক, কালের আলো:

যারা রাস্তায় নেমে বলছে, পুলিশ মানবাধিকার ক্ষুণ্ন করছে, আসলে তারাই মানবাধিকার লঙ্ঘন করছে বলে মন্তব্য করেছেন মহানগর গোয়েন্দা পুলিশের (ডিবি) প্রধান মোহাম্মদ হারুন অর রশীদ।

রোববার (১০ ডিসেম্বর) দুপুরে রাজধানীর মিন্টো রোডে নিজ কার্যালয়ে সাংবাদিকদের সঙ্গে আলাপকালে এক প্রশ্নের জবাবে তিনি এমন মন্তব্য করেন।

বিএনপির অভিযোগ, পুলিশ মানবাধিকার লঙ্ঘন করছে, এ বিষয়ে জানতে চাইলে ডিবিপ্রধান বলেন, আমরা তো আর রাস্তায় দাঁড়িয়ে মানবাধিকারের কথা বলতে পারি না। যারা তথাকথিত মানববন্ধন করছে, তারা অনেক কিছুই বলতে পারে, এটা ঠিক না।

তিনি বলেন, জাতিসংঘ সনদ অনুযায়ী প্রতিটি মানুষের বাঁচার অধিকার ও আত্মরক্ষার অধিকার সংরক্ষণ করা হয়েছে। আমি পুলিশ, কিন্তু আগে তো মানুষ। আমারও তো অধিকার আছে, আমার কি বাঁচার অধিকার নেই?

তিনি আরও বলেন, যে পুলিশ জনগণের পুলিশ, যে পুলিশ জনগণের জানমাল রক্ষায় নিয়োজিত, তথাকথিত রাজনীতির নামে সে পুলিশ সদস্যকেও নির্মমভাবে পিটিয়ে হত্যা করা হয়েছে। লাঠি দিয়ে পিটিয়ে রক্তাক্ত করা হয়েছে। এসব ছবি সবার কাছেই আছে। এমনকি পুলিশ হাসপাতালে ভাঙচুর করে অ্যাম্বুলেন্সগুলো পুড়িয়ে দেওয়া হয়েছে। এটি কি মানবাধিকার লঙ্ঘন নয়? আমরা কার কাছে বিচার চাইব?

ডিবিপ্রধান বলেন, ২০১৪ সালে ৩০ এর বেশি পুলিশ সদস্যকে পিটিয়ে হত্যা করা হয়েছিল। একটি দল বা গোষ্ঠী যারা কাজটি করেছিল, তারাই জাতিসংঘের সব আর্টিকেল লঙ্ঘন করছে।

আরেক প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, বিএনপি ২৮ অক্টোবরের আগেও নানা কার্যক্রম চালিয়েছে। ২৮ অক্টোবরের পরও তারা ধ্বংসাত্মক কার্যক্রম চালায়। এসব কার্যক্রমের জন্য তারা যুবদল-ছাত্রদলকে আট ভাগে ভাগ করে। তাদের নেতারা পুলিশকে পিটিয়েছে, পুলিশের গাড়িতে হামলা করেছে।

তিনি বলেন, কোনো সভ্য জাতি এমন কাজ করতে পারে না, তারা হাসপাতালে হামলা চালিয়েছে। শুধু হাসপাতালে হামলাই করেনি, অ্যাম্বুলেন্সগুলো পুড়িয়ে দিয়েছে। তাদের অনেককেই ঢাকা ও ঢাকার বাইরে থেকে আমরা গ্রেপ্তার করেছি।

কালের আলো.এসএম/আর

Print Friendly, PDF & Email