দুর্যোগ মোকাবেলায় ভলান্টিয়ার প্রাণশক্তির উজ্জীবন, বলিষ্ঠ-বাস্তবতার প্রতিচ্ছবিতে চিরন্তন প্রতিমন্ত্রী এনামুর রহমান

প্রকাশিতঃ 7:34 pm | November 16, 2022

বিশেষ সংবাদদাতা, কালের আলো:

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার দূরদর্শী নেতৃত্ব ও দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ প্রতিমন্ত্রী ডা: এনামুর রহমানের তত্ত্বাবধানে দুর্যোগ ঝুঁকি মোকাবেলায় বিশ্বে ‘আদর্শ দেশ’ হিসেবে সুখ্যাতি অর্জন করেছে বাংলাদেশ। ঘূর্ণিঝড়ের পাশাপাশি নানান প্রাকৃতিক দুর্যোগ মোকাবেলায় দেশটির সক্ষমতার কথা এখন উচ্চারিত হচ্ছে বৈশ্বিক পরিমন্ডলেও। স্বপ্ন জাগানিয়া এমন বাস্তবিক কৃতিত্বের পেছনে ভলান্টিয়ারদের অবদানকেও শাশ্বত সুন্দর নীতিতে মোটাদাগে উপস্থাপন করলেন দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ প্রতিমন্ত্রী ডা: এনামুর রহমান এমপি।

নৈতিকতার স্বর্ণালী পরশে, বলিষ্ঠ-বাস্তবতার প্রতিচ্ছবিতে দুর্যোগ মোকাবেলায় ভলান্টিয়ারদের তিনি ‘প্রাণশক্তি’ হিসেবে উল্লেখ করে গৌরবের নিবিড়তায় নতুনভাবেই যেন জাগ্রত করলেন নিজেদের সাম্য-সৌহার্দ্যরে ঘনিষ্ঠ সম্পর্ককে। ফায়ার সার্ভিস সপ্তাহের দ্বিতীয় দিনে বুধবার (১৬ নভেম্বর) সকালে রাজধানীর মিরপুরে ফায়ার সার্ভিস ট্রেনিং কমপ্লেক্সে প্রাণের মেলবন্ধন ঘটানোর এই অনবদ্য সম্মিলনের মিলন মোহনায় নিজেকে একাকার করেন প্রতিমন্ত্রী ডা: এনামুর রহমান।

নবপ্রযত্নে দুর্যোগ সহনীয় নিরাপদ বাংলাদেশ গড়তে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার দূরদর্শী নেতৃত্বের সাফল্যের ধারাবাহিকতা বজায় রাখতে আলোকোজ্জ্বল মহিমায় বঙ্গবন্ধুকন্যার নবতর সংগ্রামকেও দীপ্তিময়তায় উচ্চকিত করেন। তিনি বলেন, ‘বাংলাদেশ দুর্যোগ মোকাবেলায় বিশ্বের রোল মডেল হতে পেরেছে আমাদের প্রিয় ভলান্টিয়ারদের জন্য। তাঁরাই আমাদের প্রাণশক্তি।’

ভলান্টিয়ারদের সামগ্রিক কর্মযজ্ঞে নিজের মুগ্ধতার কথাও প্রকাশ করেন তিনি। অগ্নিনির্বাপণ অপারেশনাল কার্যক্রমে সহযোগিতার স্বীকৃতি হিসাবে ৫ জন ভলান্টিয়ারের হাতে তুলে দেন স্বীকৃতি সনদ। দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ প্রতিমন্ত্রী নিজের বক্তব্যে ফায়ার সার্ভিস ও সিভিল ডিফেন্স অধিদপ্তরের সক্ষমতা বৃদ্ধিতেও সরকারের নানা উদ্যোগের কথা জানান।

তিনি বলেন, ‘মাননীয় প্রধানমন্ত্রী ফায়ার সার্ভিসকে হৃদয় থেকে ধারণ করেন। ফায়ার সার্ভিস কর্মীরা জীবনের ঝুঁকি নিয়ে দুর্ঘটনা দুর্যোগে প্রশংসনীয়ভাবে কাজ করে যাচ্ছেন। বর্তমান সরকার ফায়ার সার্ভিসের সক্ষমতা বৃদ্ধিতে সকল ধরনের ব্যবস্থা গ্রহণ করেছে।’

নানা আয়োজনে ফায়ার সার্ভিস সপ্তাহের দ্বিতীয় দিন
ফায়ার সার্ভিস সপ্তাহ উদযাপনের দ্বিতীয়দিন আয়োজিত এই অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি ছিলেন স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের সুরক্ষা সেবা বিভাগের অতিরিক্ত সচিব শাহানারা খাতুন। অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন ফায়ার সার্ভিস ও সিভিল ডিফেন্স অধিদপ্তরের মহাপরিচালক (ডিজি) ব্রিগেডিয়ার জেনারেল মো. মাইন উদ্দিন। তিনি ফায়ার সার্ভিস এর পক্ষ থেকে শুভেচ্ছা স্মারক হিসেবে প্রতিমন্ত্রীকে ক্রেস্ট তুলে দেন।

ফায়ার সার্ভিস জানায়, এদিন সকাল সাড়ে ৯টায় বিভিন্ন স্থান থেকে আসা ভলান্টিয়ারদের রেজিস্ট্রেশন শুরু হয়। এরপর ভলান্টিয়ারদের অংশগ্রহণে অগ্নিনির্বাপণ, উদ্ধার ও প্রাথমিক চিকিৎসা বিষয়ক মহড়া উপভোগ করেন দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ মন্ত্রণালয়ের প্রতিমন্ত্রী ডাঃ এনামুর রহমান। এর আগে অনুষ্ঠানে উপস্থিত হলে সিনিয়র স্টেশন অফিসার নাজিম উদ্দিনের নেতৃত্বে স্বেচ্ছাসেবকরা তাঁকে গার্ড অব অনার প্রদান করেন। অভিবাদন গ্রহণ করে প্রতিমন্ত্রী মহড়া কার্যক্রম প্রত্যক্ষ করেন।

আলোচনা অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথির বক্তব্যে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের সুরক্ষা সেবা বিভাগের অতিরিক্ত সচিব শাহানারা খাতুন ফায়ার সপ্তাহ প্রতিপালনের শুভ উদ্বোধনের দিন মাননীয় প্রধানমন্ত্রী যেসব অনুশাসন দিয়েছেন তার উল্লেখ করে এসব অনুশাসন প্রতিপালনে সবার আন্তরিক সহযোগিতা কামনা করেন। তিনি ভলান্টিয়ারদের কার্যক্রমের জন্য আন্তরিক ধন্যবাদ জ্ঞাপন করেন।

সভাপতির বক্তব্যে ফায়ার সার্ভিস ও সিভিল ডিফেন্স অধিদপ্তরের মহাপরিচালক (ডিজি) ব্রিগেডিয়ার জেনারেল মো. মাঈন উদ্দিন বলেন, ‘আমরা সরকার এবং স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের কাছে গভীরভাবে কৃতজ্ঞ। আমরা ফায়ার সার্ভিসের সক্ষমতা বৃদ্ধিতে বিশ্বের সবচেয়ে আধুনিক ও প্রযুক্তি সমৃদ্ধ সরঞ্জাম দেওয়ার জন্য দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ মন্ত্রণালয় এবং মাননীয় প্রতিমন্ত্রীকে আন্তরিক ধন্যবাদ ও কৃতজ্ঞতা জানাই।’

পরে ফিতা কেটে যান্ত্রিক শোভাযাত্রার শুভ উদ্বোধন করেন অনুষ্ঠানের প্রধান অতিথি ডাঃ এনামুর রহমান এমপি। বিকেলে ‘ভবিষ্যৎ ফায়ারফাইটার’ শিরোনামে চিত্রাংকন প্রতিযোগিতার আয়োজন করা হয়। এতে প্রধান অতিথি ছিলেন ফায়ার সার্ভিস নারী কল্যাণ সমিতির সভাপতি রেহানা সুলতানা।

কালের আলো/এসবি/এমএম

Print Friendly, PDF & Email