ট্রাকচাপায় নিহত নারীর সদ্যোজাত শিশুর দায়িত্ব নিলেন ময়মনসিংহের ডিসি

প্রকাশিতঃ 10:54 am | July 17, 2022

কালের আলো প্রতিবেদক:

ময়মনসিংহের ত্রিশাল উপজেলায় এক অন্তঃসত্ত্বা নারী ট্রাকচাপায় মারা যাওয়ার আগে জন্ম দেওয়া শিশুর দায়িত্ব নিয়েছেন জেলা প্রশাসক (ডিসি) মো. এনামুল হক।

শনিবার (১৬ জুন) রাত সাড়ে ৯টার দিকে নগরীর লাবিব হাসপাতালে চিকিৎসাধীন ওই শিশুকে দেখতে গিয়ে ভরণপোষণের দায়িত্ব নেন তিনি।

বিষয়টি নিশ্চিত করে জেলা প্রশাসক মোহাম্মদ এনামুল হক বলেন, আমি ওই শিশুকে দেখতে হাসপাতালে গিয়েছিলাম। সেখানে গিয়ে শিশুটির চিকিৎসা খরচসহ ভবিষ্যতে যেন কোনো সমস্যা না হয় সেজন্য তার নামে একটি ব্যাংক অ্যাকাউন্ট করে দেবো বলেছি।

এর আগে শনিবার (১৬ জুলাই) দুপুরে উপজেলার রাইমনি গ্রামের ফকির বাড়ির মোস্তাফিজুর রহমান বাবলুর ছেলে জাহাঙ্গীর আলম (৪০), তার অস্তঃসত্ত্বা স্ত্রী রত্না বেগম (৩০), মেয়ে সানজিদাকে (৬) নিয়ে আল্টাসনোগ্রাফি করাতে ত্রিশালে আসেন। পৌর শহরের খান ডায়াগনোস্টিক সেন্টারের সামনে রাস্তা পারাপারের সময় ময়মনসিংহগামী একটি ট্রাক তাদের চাপা দেয়। এতে ঘটনাস্থলেই জাহাঙ্গীর আলম ও রত্না বেগম মারা যায় এবং ঘটনাস্থলেই রত্না বেগমের পেট ফেটে শিশুটির জন্ম হয়।

পরে আহত শিশু সানজিদা ও নবজাতককে ত্রিশাল উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক সানজিদাকে মৃত ঘোষণা করে নবজাতককে ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে স্থানান্তর করেন। তবে, অতিরিক্ত যানজটের কারণে নবজাতককে চুরখাই কমিউনিটি বেজড মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।

কমিউনিটি বেজড মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের সহযোগী অধ্যাপক ডা. মোহাম্মদ কামরুজ্জামান জানান, শিশুটির অবস্থা আমরা পর্যবেক্ষণ করেছি, সে ভালো আছে এবং শঙ্কাযুক্ত। যেহেতু মায়ের দুধ পাচ্ছেনা তাই ফর্মুলা দুধ খাওয়ানো হচ্ছে।

তিনি আরও জানান, বাচ্চাটির ডান হাতে দুটি হাড় ভাঙা রয়েছে। এই জন্য তাকে আলাদাভাবে চিকিৎসা দেওয়া হচ্ছে। তবে আর কোনো সমস্যা নেই।

পরে শিশুটিকে চরপাড়া এলাকায় লাবিব হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। শিশুটি বর্তমানে সেখানেই চিকিৎসাধীন।

কালের আলো/ডিএস/এমএম

Print Friendly, PDF & Email