বাংলাদেশের নির্বাচন নিয়ে কোনো লুকোচুরি হয় না: পররাষ্ট্রমন্ত্রী

প্রকাশিতঃ 7:18 pm | January 08, 2023

নিজস্ব প্রতিবেদক, কালের আলো:

বাংলাদেশ নিয়ে বিদেশিদের মাতব্বরির কোনও দরকার নেই বলে মন্তব্য করেছেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. এ কে আব্দুল মোমেন।

তিনি বলেছেন, বাংলাদেশের নির্বাচন নিয়ে কোনো লুকোচুরি হয় না, চাইলে যেকোনো দেশ পর্যবেক্ষণ করতে পারে। যাদের নিজেদের নির্বাচন প্রশ্নবিদ্ধ, তাদের বাংলাদেশের নির্বাচন নিয়ে মাতব্বরি মানায় না। আমেরিকায় ১৩-১৪ বারে হলো স্পিকার, এই ধরনের ঝামেলা তো আমাদের হয় না।

রোববার (৮ জানুয়ারি) সকালে সিলেট ওসমানী আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে ছয়টি ই-গেট স্থাপন উদ্বোধন শেষে এমনটিই বলেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী এ কে আব্দুল মোমেন।

পররাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, বাংলাদেশের সৃষ্টি হয়েছে গণতন্ত্র, মানবাধিকার ও ন্যায়বিচার প্রতিষ্ঠার জন্য। যখন আওয়ামী লীগ সরকার সংখ্যাগরিষ্ঠতা অর্জনের পরও সরকার গঠন করতে না দেওয়ার কারণেই আন্দোলন শুরু হয়। তারপর গণহত্যা শুরু হলেই স্বাধীনতার ঘোষণা আসে। সুতরাং বাংলাদেশের জন্ম হয়েছে গণতন্ত্র সুসংহত করার জন্য। দেশের মানুষ যুদ্ধ করেছে মানবাধিকার প্রতিষ্ঠা করতে। এ দেশের প্রতিটি মানুষের রক্তে এসব মিশে আছে, তাই আমাদের দেশ নিয়ে অন্যদের মাতবরি দরকার নেই, উনারা নিজেদের আয়নায় দেখুক।

ড. মোমেন বলেন, তবে আমরা এবং আমাদের প্রধানমন্ত্রী অঙ্গীকার করেছেন আগামী নির্বাচন স্বচ্ছ, সুন্দর, গ্রহণযোগ্য এবং ইনক্লুসিভ হবে। সবাইকে নিয়েই নির্বাচন হবে, যারা আসবে আর আমার দল বিশ্বাস করে আমার ভোট আমি দেব যাকে খুশি তাকে দিব এই স্লোগানকে। অন্যরা মাতবরি করতে পারেন তাদের উচিত আমাদের অনুসরণ করা। আওয়ামী লীগ সরকার নির্বাচনের মাধ্যমেই ক্ষমতায় আসে। কোনোদিন কোনো কারসাজি করে কিংবা মিলিটারি এসে ক্ষমতা দিয়ে যায়নি। সুতরাং এসব নিয়ে তারা যে বিভিন্ন সময় সন্দেহ পোষণ করেন তারা আসলে ইতিহাস জানেন না, ঠিকমতো পর্যবেক্ষণ করছেন না বলেই অনেক সময় অনেক অবান্তর বক্তব্য দিয়ে থাকেন।

তিনি বলেন, আমি আশা করছি তারা আমাদের ইতিহাস পড়ুক, আমাদের চলার পথ অনুসরণ করুক তাহলেই বুঝতে পারবে এ দেশটি গণতন্ত্রের কেন্দ্রবিন্দু।

আগামী নির্বাচনে যুক্তরাষ্ট্র পর্যবেক্ষকরা সুযোগ পাবেন কিনা- জানতে চাইলে ড. মোমেন বলেন, অবশ্যই পর্যবেক্ষণ করতে পারে, বাংলাদেশে গোপন করার কিছু নেই।

কালের আলো/এসবি/এমএম

Print Friendly, PDF & Email