মেটাকে ‘সন্ত্রাসী ও চরমপন্থী’ সংগঠনের তালিকাভুক্ত করেছে রাশিয়া

প্রকাশিতঃ 9:23 pm | October 11, 2022

আন্তর্জাতিক ডেস্ক, কালের আলো:

সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ফেসবুক এবং ইনস্টাগ্রামের মূল সংস্থা মার্কিন টেক জায়ান্ট মেটাকে ‘সন্ত্রাসী এবং চরমপন্থী’ সংগঠন হিসাবে তালিকাভুক্ত করেছে রাশিয়া। মঙ্গলবার মার্কিন এই প্রযুক্তি কোম্পানির বিরুদ্ধে নতুন করে এই পদক্ষেপ নেওয়া হয়েছে বলে রাশিয়ার ফেডারেল সার্ভিস ফর ফিন্যান্সিয়াল মনিটরিং জানিয়েছে।

গত ফেব্রুয়ারিতে ইউক্রেনে রাশিয়ার সামরিক অভিযান শুরুর পর কর্তৃপক্ষ মেটাকে ‘রুসোফোবিয়া’ বা ‘রাশিয়াভীতি’ প্রচারের দায়ে অভিযুক্ত করে। পরে মার্চের শেষের দিকে ফেসবুক এবং ইনস্টাগ্রামকে ‘চরমপন্থী কার্যকলাপ চালানোর’ দায়ে নিষিদ্ধ করা হয়।

গত ১০ মার্চ মেটা এক ঘোষণায় জানায়, তাদের প্লাটফর্মগুলোতে ‘রাশিয়ার আক্রমণকারীদের মৃত্যু’ চাওয়ার মতো বক্তব্য-বিবৃতি প্রচারের অনুমতি দেওয়া হবে। তবে বেসামরিক নাগরিকদের বিরুদ্ধে হুমকির প্রচার করা যাবে না।

আর রাশিয়াবিরোধী এ ধরনের পোস্ট কেবল ইউক্রেনীয় ভূখণ্ড থেকে ব্যবহারকারীরা দিতে পারবেন বলে জানানো হয়। মার্চের পর থেকে রাশিয়ায় ফেসবুক এবং ইনস্টাগ্রাম নিষিদ্ধ রয়েছে।

তবে অনেক রুশ নাগরিক ভিপিএনের মাধ্যমে বিকল্প উপায়ে সামাজিক যোগাযোগের এসব মাধ্যম ব্যবহার করছেন।

রাশিয়ায় ইনস্টাগ্রামের বিশেষ জনপ্রিয়তা রয়েছে। দেশটিতে বিজ্ঞাপন এবং অনলাইন ব্যবসা-বাণিজ্যের অন্যতম মূল প্ল্যাটফর্ম হিসাবে ব্যবহৃত হতো ইনস্টাগ্রাম।

বিশ্বজুড়ে প্রত্যেক দিন কোটি কোটি মানুষ মেটার অ্যাপ ব্যবহার করছেন। রাশিয়ার এই সিদ্ধান্ত কট্টর ডানপন্থী জাতীয়তাবাদী গোষ্ঠী তালেবানসহ বিদেশি বিভিন্ন সন্ত্রাসী সংগঠন ও রাশিয়াবিরোধী সংস্থার মতো সন্ত্রাসী সংগঠনের তালিকায় মেটাকে যুক্ত করল। সূত্র: এএফপি।

কালের আলো/এমএইচ/এসবি

Print Friendly, PDF & Email