কৃচ্ছতা সাধনে টেলিটকের ফাইভ-জি স্থগিত

প্রকাশিতঃ 1:51 pm | August 02, 2022

নিজস্ব প্রতিবেদক, কালের আলো:

জাতীয় অর্থনৈতিক পরিষদের নির্বাহী কমিটির (একনেক) সভায় টেলিটকের ফাইভজি প্রকল্প স্থগিত করেছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। কৃচ্ছতা সাধনের জন্যই প্রকল্পটি অনুমোদন দেয়া হয়নি বলে জানানো হয়েছে।

মঙ্গলবার (২ আগস্ট) জাতীয় অর্থনৈতিক পরিষদের নির্বাহী কমিটির (একনেক) সভায় প্রকল্পটি চূড়ান্ত অনুমোদনের জন্য উপস্থাপন করে ডাক ও টেলিযোগাযোগ বিভাগ। তবে ব্যয় সংকোচনের জন্য প্রকল্পটি একনেক সভায় অনুমোদন না দিয়ে ফিরিয়ে দেওয়া হয়েছে। প্রকল্পের বাস্তবায়নকাল ছিল জুলাই ২০২২ থেকে ডিসেম্বর ২০২৩ নাগাদ।

প্রধানমন্ত্রীর বরাত দিয়ে পরিকল্পনামন্ত্রী বলেন, প্রধানমন্ত্রী ফাইভ জি প্রকল্প স্থগিত করেছেন। যেহতু কৃচ্ছতা সাধনের চেষ্টা করছি। সে কারণে মূলত এই প্রকল্প স্থগিত করা হয়েছে।

কারণ হিসেবে মন্ত্রী বলেন, ফাইভ-জি প্রকল্প পাস হলে আমাদের কিছু জিনিস আমদানি করতে হত। তাই আপাতত এই সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে। তবে পরবর্তী সময়ে এই প্রকল্পের বিষয়ে সিদ্ধান্ত নেয়া হবে।

এদিকে উত্তরা লেক উন্নয়নসহ ২ হাজার ৭ কোটি ৫৭ লাখ টাকার সাত প্রকল্পের চূড়ান্ত অনুমোদন দিয়েছে জাতীয় অর্থনৈতিক পরিষদের নির্বাহী কমিটির (একনেক) সভা। মোট ব্যয়ের মধ্যে বৈদেশিক অর্থায়ন ১২২ কোটি ৭৬ লাখ টাকা। মঙ্গলবার আগারগাঁওয়ে এনইসি সম্মেলনকক্ষে একনেক সভায় এ প্রকল্পের অনুমোদন দেওয়া হয়। গণভবন থেকে ভার্চুয়ালি একনেক সভায় সভাপতিত্ব করেন প্রধানমন্ত্রী। সভা শেষে পরিকল্পনামন্ত্রী এম এ মান্নান বিস্তারিত তুলে ধরেন।

পরিকল্পনামন্ত্রী বলেন, আমরা কৃচ্ছ্রতা সাধনের মধ্যদিয়ে যাচ্ছি। প্রকল্পের ৮০ শতাংশ ব্যয় ফরেন কারেন্সি (বিদেশি মুদ্রা) মাধ্যমে পরিশোধ করতে হবে। এতে করে রিজার্ভ থেকে ব্যয় পরিশোধ করতে হবে। তাই এটা স্থগিত করা হয়েছে। এটা পরে বাস্তবায়ন করা হবে। এ জন্য একনেক সভায় থেকে বৈদেশিক ঋণ খুঁজতে বলা হয়েছে।

পরিকল্পনা বিভাগের সচিব মামুন আল রশীদ বলেন, টেলিটকের ফোরজি পুরোপুরিভাবে সফল হয়নি। তাই আগে ফোর-জি পরে ফাইভ-জি। প্রকল্পের ৮০ শতাংশ রিজার্ভ থেকে দিয়ে আমদানি করতে হবে। তাই বিদেশি সোর্স থেকে নিয়ে আলোচনা হবে।

কালের আলো/এসবি/এমএম

Print Friendly, PDF & Email