ভয়াবহ রূপ নিচ্ছে সিলেটের বন্যা, প্লাবিত হচ্ছে নতুন এলাকা

প্রকাশিতঃ 10:40 am | May 19, 2022

নিজস্ব প্রতিবেদক, কালের আলো:

ক্রমেই ভয়াবহ রূপ নিচ্ছে সিলেটের বন্যা পরিস্থিতি। হু হু করে বাড়ছে পানি। এতে করে সিলেট নগরীর বেশির ভাগ এলাকার বাসাবাড়িতে ঢুকে পড়েছে পানি। চরম দুর্ভোগে রয়েছে বন্যাকবলিত মানুষেরা। বন্যার্তদের মাঝে খাবার সংকট দেখা দিয়েছে।

ভারতের উজান থেকে নেমে আসা পাহাড়ি ঢল অব্যাহত আছে। যার ফলে সিলেটের নদ-নদীর পানি বাড়ছে। দু-একটি স্থানে নদীর পানি কিছুটা কমলেও জেলার সার্বিক বন্যা পরিস্থিতি খারাপ।

সিলেট-জকিগঞ্জ সড়কের উপর দিয়ে প্রবাহিত হচ্ছে বন্যার পানি। যার ফলে বন্ধ হয়ে যেতে পারে যান চলাচল। পানি বাড়তে থাকলে পরিস্থিতির আরও অবনতি হতে পারে বলে আশঙ্কা করা হচ্ছে।

এদিকে, পানি উন্নয়ন বোর্ডের তথ্য অনুযায়ী—গতকাল সারা দিন সিলেটে মাত্র ৬০ মিলিমিটার বৃষ্টিপাত রেকর্ড করা হলেও সুরমা, কুশিয়ারা, সারি, লোভা ও ধলাই নদীতে পাহাড়ি ঢলে পানি বৃদ্ধি পেয়েছে।

এ ছাড়া জেলা প্রশাসন জানিয়েছে, আগামী ২৩ মে পর্যন্ত বৃষ্টিপাত হবে, যার কারণে সিলেটের বন্যা পরিস্থতি আরও খারাপের দিকে যাবে।

এদিকে, ঘরের মধ্যে পানি ঢুকে পড়ায় ক্ষতির পরিমাণ বেড়েই চলছে। জেলার ১৩টি উপজেলার মধ্যে সবকটিতেই বন্যার পানি প্রবেশ করতে শুরু করেছে। এর মধ্যে প্রথম দিকে যে ছয়টি উপজেলা বন্যার পানিতে তলিয়ে গেছে, সেসব উপজেলায় কান্নার রোল পড়েছে। এসব এলাকায় ক্ষয়ক্ষতির পরিমাণ আরও বাড়বে বলে আশঙ্কা করা হচ্ছে।

সিলেট জেলা প্রশাসন জানিয়েছে—আগামী ২৩ মে পর্যন্ত বৃষ্টিপাত হবে, যার কারণে বাড়বে পানি, ভয়াবহ হয়ে উঠবে বন্যা পরিস্থিতি।

এদিকে, ত্রাণ ও দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা মন্ত্রণালায় থেকে বরাদ্দ করা নগদ অর্থ ও খাদ্য সহায়তা ক্ষতিগ্রস্ত মানুষের তুলনায় নগন্য বলে অভিযোগ করেছেন অনেকে। সরকারের প্রতি যথাযথ ব্যবস্থা নেওয়ার দাবি জানিয়েছে ক্ষতিগ্রস্ত এসব মানুষ।

কালের আলো/ডিএস/এমএম

Print Friendly, PDF & Email