ডিএনসিসির মেয়র আতিকুল ইসলামকে নিয়ে কেন এ ‘অপপ্রচার’?

প্রকাশিতঃ 9:26 pm | August 04, 2019

নিজস্ব প্রতিবেদক, কালের আলো :

ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশনের (ডিএনসিসি) মেয়র আতিকুল ইসলামকে নিয়ে হঠাৎ করেই অপপ্রচার শুরু হয়েছে। নগরবাসী তথা দেশের সচেতন নাগরিকের কাছে তাকে হেয় প্রতিপন্ন করতেই দেড় বছর আগের পুরনো একটি ছবি ব্যবহার করে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে তাকে নিয়ে চলছে তীর্যক মন্তব্য এবং সমালোচনা।

আরও পড়ুন: এডিস মশার বিরুদ্ধে জিহাদ ঘোষণার আহ্বান মেয়র আতিকের

ছবিতে দেখা যাচ্ছে একটি পরিচ্ছনতা অভিযানে নেতৃত্ব দিচ্ছেন মেয়র আতিকুল ইসলাম। কিন্তু ফেসবুকারদের কেউ কেউ সেই ছবিটিকে ডেঙ্গু মহামারী আকার নেওয়ার বর্তমান সময়ের বলে দাবি করছেন। অথচ কালের আলো নিশ্চিত হয়েছে, ছবিটি ২০১৮ সালের ১৫ ফেব্রুয়ারি ভালোবাসা দিবস উপলক্ষে এফডিসি’র ‘মন সুন্দর যার, সে রাখে দেশ পরিষ্কার’ এই স্লোগানে পরিচ্ছন্নতা অভিযানের।

চলচ্চিত্র শিল্পী সমিতির উদ্যোগে ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশন সার্বিক সহযোগিতা করলেও ওই সময় ডিএনসিসির মেয়রই ছিলেন না মেয়র আতিকুল ইসলাম। ওই সময় দেশের বিভিন্ন গণমাধ্যমে এ ছবি সম্বলিত নিউজও প্রকাশিত হয়। সেখানে বর্তমান মেয়র আতিকুল ইসলামকে বিজিএমই’র সাবেক সভাপতি হিসেবেই উপস্থাপন করা হয়।

কিন্তু রোববার (০৪ আগষ্ট) দিনমান বিভিন্ন ফেসবুক ওয়ালে মেয়র আতিকুল ইসলামের পুরনো সেই ছবি ব্যবহার করে সমালোচনায় মুখর হয়ে উঠেছেন অনেকেই। এ বিষয়ে জানতে চাইলে ডিএনসিসি’র মেয়র আতিকুল ইসলাম রাত সোয়া ৮ টায় মোবাইলে কালের আলোকে বলেন, ‘ছবিটি প্রায় দেড় বছর আগের। তখন আমি মেয়রও নির্বাচিত হইনি।’

সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে অপপ্রচার।

তিনি বলেন, ‘এফডিসি’র পরিচ্ছন্নতা অভিযানের কর্মসূচির সেই ছবিকে ব্যবহার করে সমালোচনা করা হচ্ছে। যিনি প্রথম এ অপপ্রচার চালিয়েছিলেন তিনি পরবর্তীতে দু:খ প্রকাশ করে ফেসবুকে স্ট্যাটাসও দিয়েছেন।’

ডিএনসিসির মেয়র আতিকুল ইসলাম নিজের দায়িত্ব সর্বোচ্চ আন্তরিকতার সঙ্গেই পালন করেন। প্রায় ৫ মাস আগেও তাকে হীন কায়দায় বিতর্কিত করার অপচেষ্টা চালানো হয়।

ওই সময় বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ৯৯তম জন্মবার্ষিকী ও জাতীয় শিশু দিবস উপলক্ষে ডিএনসিসি তেজগাঁও সাতরাস্তা-সংলগ্ন মেয়র আনিসুল হক সড়কে ‘বিশেষ পরিচ্ছন্নতা অভিযান ও দেয়ালচিত্রণ’ কর্মসূচি উদ্বোধনের আগে পরিচ্ছন্ন রাস্তায় ময়লা ফেলা হয়। যাতে তিনি আবার তা পরিষ্কার করে কার্যক্রম শুরু করতে পারেন।

সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে অপপ্রচার।

এ বিষয়টি মেয়রের দৃষ্টি আকর্ষণ হলে তাৎক্ষণিক তিনি অতি উৎসাহী নির্বাহী প্রকৌশলী ও অতিরিক্ত প্রধান বর্জ্য ব্যবস্থাপনা কর্মকর্তা (অতিরিক্ত দায়িত্ব) এস এম শফিকুর রহমানকে সাময়িকভাবে বরখাস্ত করেন।

জানা যায়, ‘প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ঘোষণা, এডিস মশা থাকবে না’ স্লোগান নিয়ে বাংলাদেশ চলচ্চিত্র উন্নয়ন করপোরেশনে (বিএফডিসি) চলচ্চিত্র শিল্পী-কলাকুশলী, প্রযোজক, পরিচালকদের নিয়ে গত শুক্রবার (০২ আগষ্ট) পরিচ্ছন্নতা ও মশামুক্তি অভিযান উদ্বোধন করেন তথ্যমন্ত্রী ড.হাছান মাহমুদ।

সেই অনুষ্ঠানে এফডিসি’র সামনের রাস্তায় তথ্যমন্ত্রী ও তথ্যসচিব আব্দুল মালেক মশা মারার ওষুধ ছিটালেও একটি মহল তাদেরকে বিতর্কিত করতে শুধুমাত্র ঝাড়ু হাতে চলচ্চিত্র তারকাদের সঙ্গে মন্ত্রী ও তথ্য সচিবের ছবি নিয়ে ট্রল শুরু করেন। এ ঘটনায় সচেতন সাধারণ মানুষ চরম ক্ষোভ প্রকাশ করেছেন।

কেউ কেউ ওই ছবির সঙ্গেই ডিএনসিসির বর্তমান মেয়র আতিকুল ইসলামের প্রায় দেড় বছর আগের ছবি পোস্ট করে অনাকাঙ্খিত ও অনভিপ্রেত ফেসবুক পোস্টে নিজেদের ওয়াল গরম করার পাশাপাশি লম্ফঝম্ফ করছেন।

একাধিক সূত্র বলছে, সাম্প্রতিক সময়ে আওয়ামী লীগ নেতৃত্বাধীন সরকারের বিরুদ্ধে গুজব সন্ত্রাস শুরু করেছে একটি মহল। নিত্যদিনই গুজব ছড়ানোর পাশাপাশি নানা রকম মিথ্যাচার করা হচ্ছে। এসব মিথ্যাচার দিয়ে দেশের সহজ-সরল জনসাধারণকে বিভ্রান্ত করার চেষ্টা করা হচ্ছে। মূলত রাজপথে আওয়ামী লীগকে মোকাবেলা করতে ব্যর্থ অপশক্তিই পেছনের দরজা দিয়ে ক্ষমতায় আসার মোহ নিয়েই এমন গুজব সন্ত্রাস চালিয়ে যাচ্ছে।

চলতি বছরের ২৮ ফেব্রুয়ারি ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশনের (ডিএনসিসি) মেয়র পদে উপ-নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়। এ নির্বাচনে ৮ লাখ ৩৯ হাজার ৩০২ ভোট পেয়ে প্রথমবারের মতো মেয়র নির্বাচিত হন মেয়র আতিকুল ইসলাম। প্রয়াত মেয়র আনিসুল হকের স্বপ্নকে ধারণ করেই সুন্দর ও পরিচ্ছন্ন ঢাকা উপহার দেওয়ার ভিশন বাস্তবায়নে নিবিষ্ট মনে কাজ করছেন এ নগর পিতা।

কালের আলো/এমএইচ/এএ

Print Friendly, PDF & Email