‘নারী ও শিশু বান্ধব পুলিশি ব্যবস্থা গড়াই মূল উদ্দেশ্য’

প্রকাশিতঃ 3:37 pm | January 30, 2019

নিজস্ব প্রতিবেদক, কালের আলো:

সারাদেশে নারী ও শিশু বান্ধব পুলিশি ব্যবস্থা গড়াই হবে এবার পুলিশ সপ্তাহের মূল উদ্দেশ্য। আর এমনটাই জানিয়েছেন ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশ (ডিএমপি) কমিশনার আছাদুজ্জামান মিয়া।

বুধবার (৩০ জানুয়ারি) দুপুরে ডিএমপি সদর দফতরের মাঠে পুলিশ সপ্তাহ-২০১৯ এর র‍্যালি উদ্বোধন অনুষ্ঠানে তিনি একথা বলেন।

ডিএমপি কমিশনার আছাদুজ্জামান মিয়া বলেন, নগরীতে মা-বোনেরা রাস্তায় বের হবে কেউ ডিস্টার্ব করবে না। আমরা সারাদেশে নারী ও শিশু বান্ধব পুলিশি ব্যবস্থা করবো। যেখানে তারা অবাধ চলাচল করতে পারবে। নিরাপদে থাকতে পারবে। এটাই হবে এবার পুলিশ সপ্তাহের উদ্দেশ্য।

আছাদুজ্জামান মিয়া আরও বলেন, আমরা অভিযোগ পেয়েছি ব্যবসায়ীদের কাছে থেকে সন্ত্রাসীরা চাঁদা নেয়। আমরা নগরীর অপরাধ কর্মকাণ্ড কমাতে আমরা উন্নত ও আধুনিক পুলিশিং তৈরির প্রত্যয়ে কাজ করছি।

তিনি বলেন, মহানগরে কোথায় কোন মাদকের আখড়া থাকবে না। যদি মাদকের কোন আখড়া গড়ে উঠে তবে তা ভেঙ্গে গুড়িয়ে দেয়া হবে। যদি কোনো পুলিশ সদস্য এগুলোতে জড়িত থাকে। তবে তাদের বিরুদ্ধেও কঠোর ব্যবস্থা নেয়া হবে।

তাছাড়া মহানগরী থেকে সন্ত্রাস ও জঙ্গিবাদ কঠোরভাবে নির্মূল করা হবে। যারা দুর্নীতি করবে তাদেরও আইনের আওতায় আনা হবে।

এই পুলিশ কমিশনার বলেন, ঢাকা মহানগরকে অপরাধ মুক্ত রাখতে পুলিশ কাজ করছে। এর জন্য বিভিন্ন জায়গাতে সিসি টিভি ক্যামেরা স্থাপন করা হয়েছে। আমরা মনিটরিং করে সেসব অপরাধীদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেব।

নাগরিকদের অনুরোধ জানিয়ে তিনি বলেন, যেকোনো তথ্য দিয়ে নগরীর অপরাধ দমনে পুলিশকে সহায়তা করুন।

এর আগে পুলিশ সপ্তাহ-২০১৯ এর র‍্যালি উদ্বোধনী অনুষ্ঠান শেষে ডিএমপি সদর দফতর থেকে একটি র‍্যালি বের হয়ে কাকরাইল দিয়ে শান্তিনগর গিয়ে শেষ হয়।

কালের আলো/ওএইচ

Print Friendly, PDF & Email